ঝুঁকি নিয়ে গিনেসে নাম লেখালো ভারতীয় কিশোর

প্রকাশিত: ৯:৫৫ অপরাহ্ণ, জুন ৮, ২০২১
আধব সুগুমার

চেন্নাইয়ের বাসিন্দা ওই কিশোরের নাম আধব সুগুমার। সম্প্রতি মারাত্মক ঝুঁকি নিয়ে হুলা হুপিং করতে করতে টানা ৫০টি সিঁড়ি পার করেছে সে। হুলা হুপিং করতে করতে সবচেয়ে কম সময়ে টানা ৫০টি সিঁড়ি পার করার স্বীকৃতি হিসেবে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে জায়গা করে নিয়েছে সে। প্রতিভা ও দক্ষতার কোনও বয়স নেই। আরও একবার এটি প্রমাণ করলো এক ভারতীয় কিশোর।

৫০টি সিঁড়ি পার করতে তার সময় লেগেছে ১৮ দশমিক ২৮ সেকেন্ড। তার এমন কা-কারখানা দেখে মুগ্ধ হয়েছেন খ্যাতনামা ব্রিটিশ অ্যাডভেঞ্চারার বিয়ার গ্রিলস। প্রথমে টানা ৩৮টি সিঁড়ি পার হয় আধব। পরে খানিকটা এগিয়ে পরের ধাপের ১২টা সিঁড়ি পার হয় সে। ভিডিওতে দেখা গেছে, সিঁড়ি পার হওয়ার গতি যতই বাড়ুক, কোমরে কিন্তু ভারসাম্য বজায় রেখেই চলছে হুলা হুপিং। কিশোর আধব সুগুমারের ব্যালেন্স করার এমন ক্ষমতা আর গতি দেখে মুগ্ধ নেট দুনিয়া। অভিনব রেকর্ডের জন্য তাকে শুভেচ্ছায় ভাসিয়েছে নেটিজেনরা।

ইনস্টাগ্রামে ভাইরাল হয়েছে হুলা হুপিং করতে করতে আধবের সিঁড়ি পার হওয়ার ভিডিও। গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড কর্তৃপক্ষের অফিসিয়াল ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে শেয়ার করা হয়েছে তার এই ভিডিও। ভিডিও-র কমেন্ট সেকশনে তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ম্যান ভার্সেস ওয়াইল্ড শো-র জনপ্রিয় তারকা বিয়ার গ্রিলস-সহ বহু মানুষ। বিয়ার গ্রিলস লিখেছেন, ‘ওয়েল ডান আধব!’ আরেকজন লিখেছেন, ‘আমার মনে হয় না যে, হুলা হুপিং ছাড়াও আমি মাত্র ১৮ সেকেন্ডে ৫০টি সিঁড়ি পার হতে পারবো।’

জানা গেছে, গত দুই বছর ধরে হুলা হুপিং প্র্যাকটিস করছে আধব সুগুমার। লক্ষ্য ছিল গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে নাম লেখানো। শেষ পর্যন্ত সাফল্য এসে ধরা দিয়েছে গত ১০ এপ্রিল। এদিন আগের সব রেকর্ড ভেঙ্গে নতুন রেকর্ড গড়তে সমর্থ হয় সে। এর আগে এই রেকর্ড ছিল যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাশরিটা ফারমানের দখলে। হুলা হুপিং করতে করতে ৫০টি সিঁড়ি পার হতে তার সময় লেগেছিল ২৩ দশমিক ৩৯ সেকেন্ড। যেখানে আধব সুগুমারের লেগেছে ১৮ দশমিক ২৮ সেকেন্ড।