কাটাখালীর সেই মেয়রকে আ.লীগ থেকে অব্যাহতি

প্রকাশিত: ৬:২৪ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৪, ২০২১

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল নির্মাণ নিয়ে বিতর্কিত বক্তব্য দেওয়ায় কাটাখালী পৌরসভার মেয়র ও পৌর আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক মো. আব্বাস আলীকে দলীয় পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) বিকেলে দলীয় কার্যালয়ে পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের জরুরি বৈঠকে আব্বাসকে পৌর আওয়ামী লীগের আহ্বায়কের পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাজদার রহমান সরকার সারাবাংলাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ‘উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা ইয়াসিন আলীর সভাপতিত্বে জরুরি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। সভায় আব্বাস আলীকে দলীয় পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। একইসঙ্গে কেন দলীয় সদস্য পদ থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হবে না জানতে চেয়ে কারণ দর্শণের নোটিশ দেওয়ারও সিদ্ধান্ত হয়।’

মাজদার রহমান আরও বলেন, ‘বৈঠক শেষে কাটাখালী পৌর আওয়ামী লীগের আহ্বায়কের পদ থেকে বহিষ্কার করে তিন দিনের মধ্যে জবাব দেওয়ার নির্দেশ দিয়ে আব্বাসের নামে কারণ দর্শানোর নোটিশ ইস্যু করা হয়েছে। জবাব পাওয়ার পর তাকে স্থায়ী বহিষ্কারের জন্য দলের কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে সুপারিশ পাঠানো হবে।’

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) সকাল থেকে মেয়র আব্বাসের কথোপকথনের একটি অডিও ক্লিপ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এতে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল ইসলামী শরিয়ত মতে হবে না; নির্মাণ করলে পাপ হবে এমন কথা বলতে শোনা যাচ্ছে। অডিওতে রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের সমালোচনা করা হচ্ছে। ঘরোয়া বৈঠকের ওই কথোপকথনে অশ্লীল ভাষায় গালাগালও রয়েছে। এই অডিও ছড়িয়ে পড়ার পর রাজশাহীজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে।